প্রধান মেনু

নারী সাংবাদিক নির্যাতনকারীদের গ্রেফতারের দাবীতে ঝিনাইদহে মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন

শামীমুল ইসলাম শামীম, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ নারী সাংবাদিক মারধর ও নির্যাতনের ঘটনায় জড়িত আসামীদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে ঝিনাইদহে মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার সকালে পোষ্ট অফিস মোড়ে এ মানববন্ধনের আয়োজন করেন নির্যাতিতা নারী সাংবাদিক দৈনিক শ্যামবাজার পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার তানিয়া আফরোজ। ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধনে বিভিন্ন শ্রেনী পেশার নারী- পুরুষ একাত্মতা প্রকাশ করে মানববন্ধনে অংশ নেয়। মানববন্ধনে নির্যাতিতা নারী তানিয়া আফরোজ তার বক্তব্যে বলেন,এক সপ্তাহ পার হলেও এখন পযর্ন্ত প্রশাসন আসামীদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছে না। দুইজন আসামী প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ বিভাগ তাদের গ্রেফতার করতে পারছে না।

প্রেসক্লাবের মতো পবিত্র জায়গায় এ ধরনের শ্লীলতাহানি ও সন্ত্রাসী কার্যক্রম চলতে পারেনা। তাই সাংবাদিকদের সংবাদ পরিবেশনের স্থানে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে আব্দুর রহমান মিল্টনসহ তার সহযোগী রামিমের অনতিবিলম্বে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান নির্যাতিতা নারী। মানববন্ধন শেষে ঝিনাইদহ প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। সংবাদ সম্মেলনে প্রেসক্লাবের সভাপতি এম রায়হানসহ অন্যান্য সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন। মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলনে নির্যাতিতা সাংবাদিক তানিয়া আফরোজ বলেন, ডিবিসি চ্যানেলের ঝিনাইদহ প্রতিনিধি নারী নির্যাতন মামলার প্রধান আসামী লম্পট ও মাদকাসক্ত আব্দুর রহমান মিল্টন এবং অপর আসামী রামীম হাসান মামলা তুলে নিতে তাকে হুমকি দিচ্ছে। দ্রুত আসামীদের গ্রেফতারের দাবী জানান তিনি।

উল্লেখ্য, গত ৫ নভেম্বর শৈলকুপা থানায় আব্দুর রহমান মিল্টন ও রামীম হাসানকে আসামী করে একটি নারী নির্যাতন মামালা দায়ের হয়। উল্লেখ্য, গত ৫ নভেম্বর শৈলকুপা থানায় আব্দুর রহমান মিল্টন ও রামীম হাসানকে আসামী করে একটি নারী নির্যাতন মামালা দায়ের হয়। নারী সাংবাদিকের শ্লীলতাহানি ও মারধরের অভিযোগে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ২০০০(সংশোধনি/০৩)এর ১০ ধারা তৎসহ, ৩২৩ ও ৫০৬ পেনালকোডে মামলাটি দায়ের হয়েছে।



(পরের খবর) »